ঢেলে সাজানো হচ্ছে মালয়েশিয়ার পর্যটন খাত

অথর
নিজস্ব প্রতিবেদক   বাংলাদেশ
প্রকাশিত :৬ অক্টোবর ২০২১, ১০:৫০ পূর্বাহ্ণ
ঢেলে সাজানো হচ্ছে মালয়েশিয়ার পর্যটন খাত

ঢেলে সাজানো হচ্ছে মালয়েশিয়ার পর্যটন খাত। ডিসেম্বরেই দেশটির সব পর্যটন স্পট বিদেশিদের জন্য খুলে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে সরকার। এর আগে ৯০ শতাংশ টিকা প্রদান করেই খুলবে পর্যটনের দুয়ার।

সম্প্রতি এমনটিই জানালেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইসমাইল সাবরি ইয়াকুব। ইতোমধ্যেই পর্যটন স্পটগুলোতে চলছে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার কাজ। সম্প্রতি মালয়েশিয়া আন্দামান সাগরে ১০৪টি দ্বীপ নিয়ে গঠিত লংকাউই দ্বীপমালা স্থানিয় পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে। তবে দেশটির উপকূলীয় এলাকা থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরের এ দ্বীপমালায় এখন কেবল টিকা নেওয়া অভ্যন্তরীণ পর্যটকদেরই ভ্রমণের অনুমতি মিলছে। মালয়েশীয় সরকার অভ্যন্তরীণ পর্যটকদের জন্য শিগগির তিওম্যান দ্বীপ, জোহর, মেলাকা ও বোর্নিও দ্বীপ খুলে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে।

শুধু মালয়েশিয়াই নয়, বিশ্বের প্রায় সব দেশেই পর্যটকদের আসা-যাওয়া একেবারে নেই বললেই চলে। এমন তথ্য জানিয়েছে মালয়েশিয়া ট্যুরিজম প্রোমোশন বোর্ড।

২০১৯ সালে পর্যটন খাত থেকে আয় হয়েছিল ২৪ হাজার ২ কোটি রিঙ্গিত, যা দেশটির জিডিপির ১৫ দশমিক ৯ শতাংশ। কিন্তু করোনা মহামারী নিয়ন্ত্রণে গত বছরের মার্চে শুরু হওয়া লকডাউনে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো মালয়েশিয়ার পর্যটন খাতেও মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়। বহুদিন পর দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার এ দেশটির জনপ্রিয় ও আকর্ষণীয় পর্যটনকেন্দ্রগুলো পর্যটকদের আবার হাতছানি দিয়ে ডাকছে।

সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।